সংবাদ শিরোনাম

 

ময়মনসিংহে লাগামহীনভাবে বাড়ছে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম। সপ্তাহের ব্যবধানে কেজিতে ১০ টাকা বেড়েছে মসুর ডাল ও আটার দাম। সেইসঙ্গে বেড়েছে মুরগি-মাছের দামও। গত সপ্তাহের তুলনায় কাঁচা মরিচ কেজিতে ৪০ টাকা বেড়ে হয়েছে ১২০ টাকা। শিম, গাজর, টমেটো, ফুলকপির দামও নাগালের বাইরে।

গতকাল শনিবার (২৮ আগস্ট) বিকেলে ময়মনসিংহের ঐতিহ্যবাহী শম্ভুগঞ্জ বাজারে ঘুরে এসব তথ্য পাওয়া যায়।

শম্ভুগঞ্জ মধ্যবাজারের বিনয় পাল স্টোরের বিক্রেতা বিমন পাল জানান, বড় মসুর ডাল কেজিতে ১০ টাকা বেড়ে হয়েছে ৮৫ টাকা, ছোট মসুর ডাল ১২০ টাকা কেজি, চিনি ৮০ টাকা কেজি, পেকেট আটা ৩৫ টাকা থেকে বেড়ে হয়েছে ৪০ টাকা, খোলা আটা ২৫ টাকা থেকে বেড়ে হয়েছে ৩৫ টাকা, মাসকলাই ডাল ৯০ টাকা থেকে বেড়ে ১০০ টাকা কেজি, মুগডাল ১৩০ টাকা কেজি, ছোলা বুট ৬০ টাকা থেকে বেড়ে ৭০ টাকা, বুট ডাল ৮০ টাকা থেকে বেড়ে ৯০ টাকা এবং মুড়ি বিক্রি হচ্ছে ৭০ টাকা কেজি দরে।

বাজারের মাছ বিক্রেতা মো. বাবুল মিয়া জানিয়েছেন, সব প্রকার মাছের দাম গড়ে ২৫ থেকে ৩০ টাকা বেড়েছে। পাঙ্গাস ১২০ টাকা থেকে ১৩০ টাকা কেজি, সিলভার মাছ ২০০ টাকা কেজি, ছোট কাতল মাছ ৩৫০ টাকা কেজি, ছোট রুই মাছ ২৪০ টাকা কেজি, কারপিও মাছ ২৩০ টাকা কেজি, ছোট মৃগেল ২২০ টাকা, বাউশ ২৬০ টাকা, শিং ৫৫০ টাকা, মাগুর ২৬০ টাকা, রাজপুটি ২২০ টাকা, টেংরা ৩৮০ টাকা এবং ইছা মাছ ৫৬০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে।

ওই বাজারের মাংস বিক্রেতা সুলতান জানান, বাজারে খাসির মাংস ৮০০ টাকা কেজি এবং গরুর মাংস ৫৬০ থেকে ৫৮০ টাকা কেজি দরে বিক্রি চলছে।

মুরগি বিক্রেতা মিজান মিয়া জানান, গত সপ্তাহের তুলনায় মুরগির দাম বেড়েছে। ব্রয়লার কেজিতে ১০ টাকা বেড়ে হয়েছে ১৩০ টাকা কেজি, সোনালী মুরগি ২০ টাকা বেড়ে হয়েছে ২৩০ টাকা কেজি, সাদা কক মুরগি বেড়ে হয়েছে ২২০ টাকা।

এদিকে বাজারে হাঁসের ডিম ৪০ টাকা, দেশি মুরগির ডিম ৫০ টাকা, ফার্মের মুরগির ডিম ৩০ টাকা থেকে ৩৫ টাকা হালি দরে বিক্রি হচ্ছে।

শম্ভুগঞ্জ পশ্চিম বাজারের সুমন অয়েল মিলের বিক্রেতা সুমন জানান, বোতলজাতকরণ সয়াবিন তেল ১৫৩ টাকা কেজি, খোলা সয়াবিন তেল ১৪০ টাকা কেজি, কোয়ালিটি ১৩৫ টাকা কেজি, পামওয়েল ১৩০ টাকা কেজি, সরিষার তেল ২২০ টাকা কেজি ও নারকেল তেল বিক্রি হচ্ছে ৭০০ টাকা কেজি দরে।

বাজারের সবজি বিক্রেতা শাহজাহান মিয়া জানান, গাজর ৮০ টাকা কেজি, টমেটো ১০০ টাকা কেজি, সিম ১৪০ টাকা কেজি, ফুলকপি ৬০ টাকা কেজি, কাঁচামরিচ ১২০ টাকা কেজি, বেগুন ৫০ টাকা কেজি, করলা ৫০ টাকা কেজি, জিঙ্গা ৪০ টাকা কেজি, চিচিঙ্গা ৪০ টাকা কেজি, কাকরুল ৪০ টাকা কেজি, পটল ৪০ টাকা কেজি, কুমড়া ৪০ টাকা পিস, শশা ৩০ টাকা কেজি, লেবু ১৫ টাকা হালি, কাঁচা কলা ২৫ টাকা, পেপে ২০ টাকা কেজি, মুখি কচু ৩০ টাকা, লাউ ৫০ টাকা পিস, বরবটি ৬০ টাকা কেজি দামে বিক্রি হচ্ছে।

শম্ভুগঞ্জ মধ্যবাজারের ব্যবসায়ী মো. খোকন মিয়া জানিয়েছেন, দেশি পেঁয়াজ ৪০ টাকা কেজি, ভারত থেকে আমদানি করা পেঁয়াজ ৩৫ টাকা কেজি, ভারতীয় রসুন ১২৫ টাকা কেজি, দেশি রসুন ৬০ টাকা, আদা ৮০ টাকা, দেশি আলু ২৫ টাকা এবং বড় আলু ২০ টাকা কেজি দামে বিক্রি হচ্ছে।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম