সংবাদ শিরোনাম

 

জামালপুরে প্রাইভেটকার চালক আরিফ হত্যা মামলায় চারজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও তিন মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) দুপুরে অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ মো. সুলতান মাহমুদ এই রায় দেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- নারায়ণগঞ্জের নুর মোহাম্মদের ছেলে মোহাম্মদ আলী, জামালপুর শহরের মুসলিমাবাদ এলাকার মৃত ফারুকের ছেলে সাব্বির হোসেন, নুর হোসেনের ছেলে সবুজ হোসেন ও বাদশা মিয়ার ছেলে রবিন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ২০২১ সালের ২৮ আগস্ট রাতে প্রাইভেটকার চালক আরিফ মোটরসাইকেলযোগে জামালপুর সদর উপজেলার মাছিমপুরে নিজ বাড়িতে ফিরছিলেন। এ সময় হামিদপুর গ্রামের ব্রহ্মপুত্র নদের পাড়ে আরিফকে হত্যা করে মোটরসাইকেল ছিনতাই করে দুর্বৃত্তরা। এই ঘটনায় মামলা দায়েরের পর হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকা সন্দেহে চারজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী নজরুল ইসলাম জানান, গ্রেপ্তার চারজনের মধ্যে মোহাম্মদ আলী ও সাব্বির হোসেন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করেন। বাকি দুই আসামি সবুজ হোসেন ও রবিন উচ্চ আদালতে জামিন প্রার্থনা করলে হাইকোর্ট তাদের জামিন না দিয়ে ছয় মাসের মধ্যে মামলাটি নিষ্পত্তি করার নির্দেশ প্রদান করেন। হাইকোর্টের নির্দেশে জামালপুর জেলার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ প্রথম আদালতের বিচারক মো. সুলতান মাহমুদের আদালতে অভিযোগ গঠন করে ৩৩ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ করেন। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে মামলাটির বিচার সম্পন্ন করে চার আসামির উপস্থিতিতে প্রত্যেককে সশ্রম যাবজ্জীবন কারাদণ্ড, ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও তিন মাসের কারাদণ্ডের আদেশ দেন আদালত।

মামলায় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ছিলেন মো. আবুল কাশেম তারা ও নজরুল ইসলাম এবং আসামিপক্ষে ছিলেন মাসুদা খান মজলিস তানিয়া।


মতামত জানান :

 
 
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম